শনিবার ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

নিয়ামতপুরে টিকাদান কেন্দ্রে মানুষের ঢল

নিয়ামতপুর (নওগাঁ) প্রতিবেদক   |   শনিবার, ০৭ আগস্ট ২০২১ | প্রিন্ট

নিয়ামতপুরে টিকাদান কেন্দ্রে মানুষের ঢল

এভাবেই লাইনে দাড়িয়ে টিক নেন নিয়ামতপুরের মানুষ

নওগাঁ নিয়ামতপুরে ইউনিয়ন গণটিকা কেন্দ্রগুলোতে মানুষের উপচেপড়া ভিড়। টিকা নিতে সকাল থেকেই কেন্দ্রের সামনে লাইনে দাড়ান তারা। এর পর সকাল ৯টা থেকে এক এক করে টিকা গ্রহণ করেন তারা। টিকা নিতে আসা পুরুষের চেয়ে নারীদের সংখ্যা অনেক বেশি।

সকালে কেন্দ্রগুলোতে সকল কেন্দ্রেই চাহিদা অনুয়ায়ী মানুষ এসে উপস্থিত হয়েছেন। টোকেন এর মাধ্যমে সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে পর্যায়ক্রমে টিকা গ্রহণ করছেন।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফরিদ আহমেদ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জয়া মারীয়া পেরেরা উপজেলার বিভন্ন কেন্দ্র পরিদর্শন করেন। সুষ্ঠুভাবে টিকাদান কর্মসূচি পালিত হয়েছে। কোন কেন্দ্রে কাউকে ফিরে যেতে হয়নি। পূর্ব থেকেই আওয়ামী লীগের দলীয় নেতাকর্মীদের মাধ্যমে ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে ২শ জন করে টোকেন প্রদান করায় কাউকে হয়রানির শিকার হতে হয়নি।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার ডাঃ মোঃ তোফাজ্জল হোসেন বলেন, উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে ৮টি কেন্দ্রে প্রতিটিতে ৩টি করে বুথে এই গণটিকা দেওয়া হয়। প্রতি বুথে ২শ জন করে টিকা দেওয়া হয়। উপজেলার ৮টি কেন্দ্রগুলো হাজিগনর ইউনিয়নে খোর্দ্দচম্পা হাফিজিয়া মাদ্রাসা, চন্দননগর ইউনিয়নে চন্দননগর কলেজ, ভাবিচা ইউনিয়নে সাঁড়া দাখিল মাদ্রাসা, নিয়ামতপুর সদর ইউনিয়নে নিয়ামতপুর সরকারি বহুমুখী মডেল উ্চ্চ বিদ্যালয়, রসুলপুর ইউনিয়নে গাংগোর উচ্চ বিদ্যালয়, পাড়ইল ইউনিয়নে পাড়ইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, শ্রীমন্তপুর ইউনিয়নে পিএলবি উচ্চ বিদ্যালয় এবং বাহাদুরপুর ইউনিয়নে বালাতেড় সিদ্দিক হোসেন ডিগ্রী কলেজ।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও বাহাদুরপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবুল কালাম আজাদ বলেন, আজকে টিকা প্রদানের প্রথম দিন। আমরা ঈদের উৎসবে বাহাদুরপুর ইউনিয়নবাসী টিকা দিচ্ছে। নিবন্ধনের সার্ভার বন্ধ থাকার জন্য নিবন্ধন একটু বিলম্ব হয়েছে। আগে যারা নিবন্ধন করছে তারাও টিকা পাবে। মানুষ স্বতস্ফুর্তভাবে মা, বোন, আবাল, বৃদ্ধ বণিতা সবাই টিকা গ্রহণ করছেন। টিকা কোন সমস্যা নেই। আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছেন। তিনি আমাদের চেয়ে অনেক বেশি আমাদের নিয়ে ভাবেন, এবং সেই ভাবনারই আজকে বহিঃপ্রকাশ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার জয়া মারীয়া পেরেরা বলেন, সারা দেশের ন্যায় নিয়ামতপুর উপজেলায়ও আজকে টিকা দান কর্মসূচি শুরু হয়েছে। আজকে প্রথম ধাপে প্রতিটি ইউনিয়নে ৬শ জন করে ৮টি ইউনিয়নে ৪ হাজার ৮শ জন এই টিকা পাচ্ছে। কেন্দ্রগুলি ঘুরে আমি যেটি বুঝেছি মানুষের মধ্যে প্রচুর উৎসাহ উদ্দীপনা রয়েছে, এমনকি ৭০ উর্ব্ধ বৃদ্ধ লাঠিতে ভর দিয়ে আজকে ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য কেন্দ্রে এসেছেন। আমরা সরকারি উদ্যোগকে স্বাগত জানাচ্ছি এবং এই প্রচেষ্টকে সফল করার জন্য কাজ করছি ইনশায়াল্লাহ কাজ করে যাবো। পরবর্তী ধাপগুলো যেন সফল হয় এবং শতভাগ ভ্যাকসিনেশনের আওতায় যেন আমাদের দেশের মানুষ আসতে পারে। অনেকেই জানতে চাচ্ছে যে, রেজিস্ট্রেশন আরো অনেকে করেছেন, তারা কবে পাবেন? এটি হচ্ছে যেহেতু একদিনে সকলকে কভারেজে আনা সম্ভব নয়, এটি ক্রমান্বয়ে চলতে থাকবে।

সরকারের থেকে আমরা পরবর্তী যে তারিখগুলি পাবো সে তারিখে দ্বিতীয় ধাপ শুরু হবে তখন হয়তো এর পরিসর আরো বাড়তে পারে। ধাপে ধাপে সকল শ্রেণির পেশার এবং বয়সের মানুষকে টিকাদানের আওতায় আনা হবে। আজকে ৬শ জনকে বাছাই করে নেওয়া হয়েছে মূলত বয়স্ক, প্রবীণ, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের অগ্রাধিকার দিয়ে।

কেননা একদিনে ৬শ জনের বেশি ক্যাপাসিটি দিতে গেলে হয়তো বিশৃংখলা সৃষ্টি হতে পারে। এজন্য ৬শ জনকে ইউনিয়নে যে কমিটি আছে, ওয়ার্ডে যে কমিটি আছে টিকাদানের জন্য সেই কমিটি কর্তৃক নির্বাচন করা হয়েছে। এর মধ্যে আগে যারাা রেজিস্ট্রেশন করেছেন এমন অনেকে হয়তো বাদ যেতে পারেন, কিন্তু বাদ আসলে প্রকৃত পক্ষে যাবেন না, কারণ তারা ক্রমান্বয়ে এর তালিকাভুক্ত হবেন এবং ধাপে ধাপে আসলে শতভাগই টিকার কভারেজে আসবে। এজন্য সকলকে একটু ধৈর্য্য ধারণ করার জন্য বিনীতভাবে অনুরোধ করবো।

উত্তরা প্রতিদিন/ আমিনুল

 

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১১:০৪ অপরাহ্ণ | শনিবার, ০৭ আগস্ট ২০২১

uttaraprotidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
আব্দুল্লাহ্ আল মাহমুদ বাবলু সম্পাদক
এনায়েত করিম প্রধান বার্তা সম্পাদক
প্রধান কার্যালয়

৫৩০ (২য় তলা), দড়িখরবোনা, উপশহর মোড়, রাজশাহী-৬২০২

ফোন: ০৭২১-৭৬০১৪৩, ০১৯৭৭১০০০২৭

E-mail: uttaraprotidin@gmail.com